শিরোনাম
আসন্ন স্থানীয় সরকার নির্বাচনে প্রার্থীদের গণসংযোগে দেবিদ্বার সরগরম – প্রথম বেলা

আসন্ন স্থানীয় সরকার নির্বাচনে প্রার্থীদের গণসংযোগে দেবিদ্বার সরগরম

গোলাম রাব্বি প্লাবন, দেবিদ্বার সংবাদদাতা

স্থানীয় সরকার নিম্নতম পর্যারের একটি সরকারি কাঠামো। এই কাঠামোর মাধ্যমে সরকার উন্নয়নের ধারা দেশব্যাপী তথা গ্রাম পর্যায় পর্যন্ত বাস্তবায়ন করেন।
কয়েকটি গ্রাম নিয়ে একটি ইউনিয়ন ও প্রতিটি ইউনিয়নকে তিনটি ওয়ার্ডে ভাগ করা হয়েছে। নির্বাচন দলীয় প্রতীকে ও কোনো শিক্ষাগত যোগ্যতার মাপকাঠি থাকবে না বলে সিদ্ধান্ত নেয়াতে প্রার্থীদের অনেকেই খুশি। যদিও সাধারন মানুষকে এব্যাপারে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিরুপ মন্তব্য করতে দেখা গেছে।

নির্বাচন আগামী বছর ২০২১ সালের মার্চ মাসেই হতে হবে সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতার কারনে নির্বাচনী সময় হিসেবে সময় কম এবং দ্রুতই এগিয়ে আসছে। তাই নতুন-পুরাতন প্রার্থীর দৌড়ঝাঁপ শুরু হয়েগেছে দেবিদ্বারে।

কুমিল্লা দেবিদ্বার থানাI

১৫ টি ইউনিয়ন এবং ১টি পৌরসভা নিয়ে গঠিত। গ্রামের চা দোকানগুলোতে চলছে প্রার্থী বাছাইয়ের প্রাথমিক পর্যালোচনা। অন্যান্য বারের চেয়ে এবার প্রার্থী বেশি হবে বলে মনে হচ্ছে। প্রবীণদের পাশাপশি নবীনরাও আগ্রহী হয়ে উঠছেন নির্বাচনে অংশ নেয়ার জন্য। সবাই যার যার মতো করে প্রতীক পাবার নিশ্চয়তায় এদিক ওদিক ছুটাছুটির পাশাপাশি গ্রামে শোডাউন ও গনসংযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন সমান তালে। তাই গ্রামগুলো এখন সরগরম। করোনা মাহামারি ছাপিয়ে গেছে আপাতত। উল্লেখ্য সোশ্যাল মিডিয়া ফেইসবুকে অনেক প্রার্থীই নিজের প্রার্থীতা প্রচার করছেন। প্রচারে উপর ভিত্তি করে একটি জরিপ চালিয়ে যাদের নাম পাওয়া গেছে এর মধ্যেঃ

১ নং বড়শালঘর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে আপাতত এখন পর্যন্ত যাদের সম্ভব্য প্রতিদ্বন্দ্বিতার আওয়াজ এবং জনগনের আলোচনা শুনা যাচ্ছে তারা হলেনঃ- ১.জহিরুল ইসলাম ভুইয়া জারু (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. হাজী আব্দুল আউয়াল ৩. হাজী ইউনুস মিয়া মাষ্টার। ৪. দেওয়ান আল কাইয়ুম। ৫.মোহাম্মদ ছালাহউদ্দিন ৬. আহসান রশিদ শামীম ৭. মোঃ আলম হাজারি ।

২ নং ইউসুফপুর ইউনিয়নে ১. মোস্তফা কামাল চৌধুরী (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. এড. মাজাহারুল হক মামুন ৩. শাহ আলম মুন্সী ৪. শাহ আলম মাঝি।

৩ নং রসুলপুর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ১. কামরুল হাসান (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২.মোঃ আব্দুস সবুর খান ৩.মোঃ নিজাম উদ্দিন ৪. মোঃ নুরুল আলম সুমন ৫. রয়েল মাহমুদ বাবু।তাতী লীগের ইঞ্জিনিয়ার মো.জাকির মোল্লা,বিএনপির সভাপতি আবদুল আওয়াল মোল্লা।

৪ নং সুবিল ইউনিয়নে ১. মোঃ আবু তাহের (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. মোঃ নাজমুল হাসান সরকার। ৩. এম.এ. রশিদ ৪. মোঃ আমির হোসেন আমু ৫. মোঃ মুকুল ভুইয়া । ৬. মোঃ রমিজ উদ্দিন। ৭.কাজী নুরুল ইসলাম। ৮. মোঃ আব্দুল আলীম।

৫ নং ফতেহাবাদ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ১.খন্দকার এম,এ,ছালাম (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. মোঃ মফিজুল ইসলাম ৩. মোঃ কামরুজ্জামান মাসুদ। ৪. মোঃ ফখরুল ইসলাম খন্দকার। ৫.মোঃ সালাউদ্দিন লাভলু ৬. মোঃ আরিফুল ইসলাম মাসুম ৭.মোঃ জাহিদ হাসান ৮.মোঃ রুহুল আমিন ৯. শাহনাজ মোস্তফা।

৬ নং এলাহাবাদ ইউনিয়নে ১. মোঃ সিরাজুল ইসলাম সরকার ( বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. মোঃ নুরুল আমীন ৩.কাজী ফসিউল আহসান সজিব।

৭ নং জাফরগঞ্জ ইউনিয়নে – ১. জনাব সোহরাব হোসেন (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. মোঃ জহিরুল ইসলাম ৩. আনোয়ার হোসেন। ৪. মোঃ আবুল হোসেন সরকার। ৫. এ আর আনোয়ার ৬.সাহাদত হোসেন ভুইয়া (সোয়েব) ৭. মোঃ জাকির হোসেন।

৮ নং গুনাইঘর (উত্তর) ইউনিয়নে ১.আলহাজ্ব খোরশেদ আলম (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. হাজী আব্দুল কুদ্দুস ৩.জনাব আব্দুল মান্নান মোল্লা। ৪.মোকবল হোসেন মুকুল ৫. আলী আজম সজল ৬.মোসাঃ তাছলিমা আক্তার (তন্বী)।

৯ নং গুনাইঘর (দক্ষিন) ইউনিয়নে ১. আলহাজ্ব আব্দুল হাকিম খান (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. মোঃ হুমায়ুন কবির ৩.হাজী মোজাফফর আহমেদ ৪. মাহবুবুর রহমান মুন্সী ৫. মোঃ কামাল উদ্দিন। ৬. মোঃ জসিম উদ্দিন। ১১ নং রাজামেহার ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ১. আলহাজ্ব জাহাঙ্গীর আলম (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. মো: নোয়াব আলী খান (সাবেক চেয়ারম্যান) ৩. কামরুল হাসান ভুইয়া ৪.মোঃ জসিম উদ্দিন ৫. মোঃ রফিকুল ইসলাম রনি ৬. মো: মামুনুর রশিদ সরকার ৭. গাজি আলমগীর সরকার।

১০ নং রাজামেহার ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ১. আলহাজ্ব জাহাঙ্গীর আলম (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. মো: নোয়াব আলী খান (সাবেক চেয়ারম্যান) ৩. কামরুল হাসান ভুইয়া ৪.মোঃ জসিম উদ্দিন ৫. মোঃ রফিকুল ইসলাম রনি ৬. মো: মামুনুর রশিদ সরকার ৭. গাজি আলমগীর সরকার।

১১ নং ভানি ইউনিয়ন, এই ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে আপাতত এখন পর্যন্ত যাদের সম্ভব্য প্রতিদ্বন্দ্বিতার আওয়াজ এবং জনগনের আলোচনা শুনা যাচ্ছে তারা হলেনঃ- ১. নুরুজ্জামান ভুইয়া মুকুল (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. মো: নজরুল ইসলাম ভুইয়া ৩. মোঃ হুমায়ুন কবির ৪.মোঃ হানিফ খান ৫. ডাক্তার মোঃ জামাল উদ্দিন ৬. মোঃ আবদুল্লাহ আল মামুন (বর্তমানে অত্র ইউপি মেম্বার) ৭.মোঃ .শাহজালাল হাজারি।

১২ নং ধামতি ইউনিয়ন, এই ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে আপাতত এখন পর্যন্ত যাদের সম্ভব্য প্রতিদ্বন্দ্বিতার আওয়াজ এবং জনগনের আলোচনা শুনা যাচ্ছে তারা হলেনঃ- ১.মহিউদ্দিন সরকার মিঠু (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. অধ্যাপক মফিজুল ইসলাম ভুইয়া। ৩. আলহাজ্ব মোঃ শাহজাহান কবির। ৪. মোঃ নজরুল ইসলাম । ৫. এডভোকেট হারুনর রশিদ ৬. মোঃ আবু জায়েদ চৌধুরী (জুয়েল) ৭. হাজী আনোয়ার হোসেন ভুইয়া ৮.সৈয়দ মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন ৯. মোঃ জলিল চৌধুরী। ১০. মোঃ আলাউদ্দিন চৌধুরী।

১৩ নং সুলতানপুরে বর্তমান চেয়ারম্যান সফিকুল ইসলাম, ছেছড়াপুকুরিয়ার জসিম উদ্দিন,রাধানগরের মাহবুবুর রহমানসহ অনেকের নাম শুনা যাচ্ছে।

১৪ নং বরকমতায় বর্তমান চেয়ারম্যান জাজী মো.নুরুল ইসলাম,নবিয়াবাদের মির্জা বাহাদুর,বাঘমাড়ার মাহাবুবুর রহমানসহ অনেকরে নাম আলোচনায় আসতেছে।

১৫ নং মোহনপুর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে – ১. মোঃ শহিদুল ইসলাম (বর্তমান চেয়ারম্যান) ২. তাজুল ইসলাম ( সাবেক চেয়ারম্যান) ৩. মোঃ সাহাদত হোসেন মিঠু। ৪. মোঃ মজিব ভুইয়া ৫. আলহাজ্ব ময়নাল হোসেন ৬. এ.টি.এম সাইফুল ইসলাম মাসুম (সাংবাদিক)

0 Reviews

Write a Review

Read Previous

ফুলবাড়ীতে সাংবাদিকদের সাথে কোভিড-১৯ সুরক্ষা বিষয়ক মতবিনিময় সভা

Read Next

বিশ্ব ভ্যাকসিন পেলে বাংলাদেশও প্রথম সারির মধ্যে থাকবে

%d bloggers like this: