শিরোনাম
মজুরি না দিয়ে ২ কোটি টাকা নিয়ে পালালেন বাংলাদেশি ব্যবসায়ী – প্রথম বেলা

মজুরি না দিয়ে ২ কোটি টাকা নিয়ে পালালেন বাংলাদেশি ব্যবসায়ী

কাতারে এক বাংলাদেশি ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে শ্রমিকদের বেতন না দিয়ে ২ কোটির (১০ লাখ কাতারি রিয়াল) বেশি টাকা আত্মসাৎ করে দেশে পালানোর অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগীরা। বাবুল মিয়া নামে ওই ব্যবসায়ীর গ্রামের বাড়ি লক্ষ্মীপুর সদর থানার পার্বতি নগর ইউনিয়নের মাছিম নগর গ্রামে।

শ্রমিকের বেতন মজুরি ও কোম্পানির চেক জালিয়াতি করে পালানো বাবুল মিয়ার বিচার ও পাওনা আদায়ের দাবি তুলে সংবাদ সম্মেলন করেছেন কাতারে ৮৬ জন প্রবাসী বাংলাদেশি।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন- ওরজিনেট ট্রেডিং অ্যান্ড কন্ট্রাকটিং নামে একটি কোম্পানির পরিচালক কাজী লোকমান আজিজ। এ ছাড়া রাজধানী দোহা ফিরোজ আবদুল আজিজ এলাকায় প্রতারক বাবুল মিয়ার বিচার দাবি করেছে ভুক্তভোগী প্রবাসী শ্রমিকরা।

সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, ওরজিনেট ট্রেডিং অ্যান্ড কন্ট্রাকটিং কোম্পানিকে কাতারের বিভিন্ন কোম্পানির সঙ্গে বিভিন্ন সময়ের মেয়াদে চুক্তিবদ্ধ করিয়ে কাজ করে আসছিল ঠিকাদার বাবুল মিয়া। মহামারি করোনাভাইরাস সংকট সময়কে ব্যবহার করে চুক্তিবদ্ধ বিভিন্ন কোম্পানি থেকে কাজের মজুরি হিসেবে নগদ কাতারি রিয়াল উত্তোলন করে এবং ওরজিনেট ট্রেডিং অ্যান্ড কন্ট্রাকটিং কোম্পানি থেকে অগ্রিম নেওয়া চেকের মাধ্যমে ব্যাংক থেকে সে অর্থ উত্তোলন করেন প্রতারক বাবুল। এ ছাড়া অত্র প্রতিষ্ঠানের ৮৬ জন শ্রমিকের বেতন পরিশোধ না করে বাংলাদেশে পালিয়ে যান তিনি।

বাংলাদেশে বাবুল মিয়ার পরিবারের মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে ফোনটি বন্ধ পাওয়া যায়। তাকে বাংলাদেশে আইনের আওতায় এনে প্রবাসী শ্রমিকদের বেতন ও চেক জালিয়াতি উত্তোলনকৃত টাকা উদ্ধার করতে কাতারস্থ বাংলাদেশ দূতাবাস এবং বাংলাদেশ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছেন প্রবাসী শ্রমিকরা।

সংবাদ সম্মেলন শ্রমিকদের পক্ষে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন- কাজী লোকমান আজীজ। উপস্থিত ছিলেন, মো. মিজানুর রহমান, মো. মুস্তাফিজুর রহমান, মো. সাইফ উদ্দিনসহ ভুক্তভোগী শ্রমিকরা।

0 Reviews

Write a Review

Read Previous

বীর উত্তম সি আর দত্ত মারা গেছেন

Read Next

অনুমতি ছাড়া হাসপাতালে অভিযানে ‘না’ মর্মে সার্কুলার কেন অবৈধ নয় : হাইকোর্ট

%d bloggers like this: