মনে হচ্ছিল ঈশ্বরের সঙ্গে হাত মেলাচ্ছি, শচীনকে যুবরাজ

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের অবসরের বর্ষপূর্তিতে ভক্তদের ভালোবাসায় সিক্ত হয়েছেন যুবরাজ সিং।

২০১৯ সালের ১০ জুন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় বলেন ভারতের বিশ্বকাপজয়ী তারকা। শুধু ভক্তরাই নয়, তাকে ভালোবাসা দিয়েছেন ক্রিকেটাররাও। ভারতের ব্যাটিং ঈশ্বর শচীন টেন্ডুলকারও রয়েছেন সেই তালিকায়। টুইটারে শচীন যুবরাজকে প্রশংসায় ভাসান। যুবরাজ সিংকে প্রথম দেখার স্মৃতিচারণ করে শচীন লিখেন,‘দেখতে দেখতে এক বছর হয়ে গেল তোমার অবসরের। মনে আছে আমার সঙ্গে তোমার প্রথম দেখা হয়েছিল চেন্নাইয়ে, আমাদের ক্যাম্পে। আমাকে তোমাকে ততটা সাহায্য করতে পারিনি তবে আমার মনে আছে তুমি দারুণ অ্যাথলেট এবং পয়েন্টে তুখোড় ফিল্ডার। তোমার ছক্কা মারার সামর্থ্য নিয়ে আমি কথা বলবো। আমি বিশ্বাস করি বিশ্বের যেকোনো মাঠকে পার করার ক্ষমতা তোমার রয়েছে।’

শচীনের আবেগ ঘন টুইটের পর যুবরাজ সিংও শচীনকে প্রথম দেখার অভিজ্ঞতা শেয়ার করেন। ফিরতি টুইটে যুবরাজ লিখেন,‘ধন্যবাদ মাস্টারব্লাস্টার। আমার এখনও মনে আছে আমাদের প্রথম মুখোমুখির অভিজ্ঞতা, তোমার সঙ্গে হাত মিলিয়ে মনে হচ্ছিল ঈশ্বরের সঙ্গ হাত মেলাচ্ছি। তুমি আমার কঠিন সময়ে আমাকে পথ দেখিয়েছ। আমার সামর্থ্য নিয়ে আমাকে বিশ্বাস করাতে শিখিয়েছ। তরুণদের জন্য আমারও কিছু দায়িত্ব আছে। আশা করছি সামনে দিনগুলিতে আরও ভালো কিছু স্মৃতি যুক্ত হবে।’

ভারতীয় দলের হয়ে যুবরাজ ৩০৪ ওয়ানডে, ৫৮ টি-টোয়েন্টি ও ৪০ টেস্ট খেলেছেন। জাতীয় দলের জার্সিতে ২০১১ বিশ্বকাপ, ২০০৭ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ এবং ২০১৩ চ‌্যাম্পিয়নস ট্রফি জিতেছেন। ২০০০ সালে অভিষেকের পর ভারতীয় ক্রিকেটের অবিচ্ছেদ্য অংশ হয়ে পড়েন যুবরাজং। বৈশ্বিক শিরোপার পাশাপাশি দলকে দিয়েছেন অনেক সুখের স্মৃতি। লড়াই করেছেন ক্যান্সারের বিরুদ্ধেও। মাঠে ফিরেছেন ভালোভাবেই। তবে পুরনো ফর্ম নিয়ে ফিরতে পারেননি। এজন্য গত বছর অবসরে যান এ কিংবদন্তি।

Read Previous

লেভানদোভস্কির গোলে জার্মান কাপের ফাইনালে বায়ার্ন

Read Next

নওগাঁ মহাদেবপুর বাহারুল উলুম মাদ্রাসায় জয়নালের নিয়োগ বাণিজ্যের নেপথ্য কাহিনী পর্ব ০১

%d bloggers like this: