শিরোনাম
মাশরাফির দুই সন্তান করোনায় আক্রান্ত-চিকিৎসা চলছে ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা, পৌর আ.লীগ সভাপতিকে বহিস্কার করা হল গায়ে হলুদের সাজে মাঠে-সানজিদা ইসলাম সকালের বৃষ্টিতে অফিসগামীদের ভোগান্তি রাজধানী ১১ দফা দাবিতে সারাদেশে নৌযান ধর্মঘট চলছে শুরু হচ্ছে সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ-উপাধ্যক্ষ পদে কর্মরত অধ্যাপকদের চাকরি তৃতীয় গ্রেডে উন্নীত হচ্ছে এ বছর শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা সম্ভব হবে না বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা বিমানবন্দরের উন্নয়নে জন্য ৫৬৭ কোটি টাকা অনুমোদন দেওয়া হয়েছে ভোক্তা ঋণ বাড়াতে নতুন সুযোগ করে দিল কেন্দ্রীয় ব্যাংক দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধগতিতে সমস্যায় পড়ছেন মধ্যবিত্ত ও নিম্নমধ্যবিত্তরা
নেত্রকোনা দুর্গাপুরের সেই আলোচিত ৩ কোটি টাকার চাঁদাবাজি মামলাটির ৫ মাসেও বিচার পেলেন না বাদীপক্ষ/মামলার প্রধান অভিযুক্ত সাদ্দাম আকঞ্জিসহ সকলেই জামিনে মুক্ত – প্রথম বেলা

নেত্রকোনা দুর্গাপুরের সেই আলোচিত ৩ কোটি টাকার চাঁদাবাজি মামলাটির ৫ মাসেও বিচার পেলেন না বাদীপক্ষ/মামলার প্রধান অভিযুক্ত সাদ্দাম আকঞ্জিসহ সকলেই জামিনে মুক্ত

নেত্রকোনা প্রতিনিধি: নেত্রকোনার দুর্গাপুর উপজেলার সোমেশ্বরী নদীর বালু মহালের রয়েলিটি অফিসে হামলা, ভাংচুর,গুলি বর্ষণ ও চাঁদাবাজী অভিযোগ এনে  দুর্গাপুর উপজেলা  পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান এবং উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক  সাদ্দাম হোসেন আকঞ্জিকে প্রধান করে ৩০ জনের বিরোদ্ধে গত ৫ মাস আগে মামলাটি করেছিলেন
দুর্গাপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের দপ্তর সম্পাদক,দুর্গাপু  সোমেশ্বরী নদীর ,১ এবং ২ নং বালুঘাট ইজরাদার অঞ্জন সরকার লিটন।
মামলা সূত্রে পুলিশ জানায়, চলতি অর্থ বছরে জেলা প্রশাসন থেকে দুর্গাপুরের সোমেশ্বরী নদীর বালু মহালের ১নং ও ২ নং ঘাটের ইজারা পান অঞ্জন সরকার লিটন, আলাল সর্দার এবং তাদের অন্যান্য পার্টনাররা। ১ জুলাই ২০১৯ইং তারিখ রাত ১১টায় উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক সাদ্দাম হোসেন আকঞ্জি  ১ এবং ২ নং বালু ঘাটের ব্যবসার ভাগ চেয়ে ৩ কোটি টাকা চাঁদাদাবী করে, চাঁদা না পেয়ে রয়েলিটি অফিসে হামলা চালিয়ে অফিসের জিনিসপত্র ভাংচুর করে আকঞ্জি ও
 তার লোকজন, এ সময় ইজারাদার অঞ্জন সরকার লিটনকে লক্ষ্য করে কয়েক রাউন্ড গুলি বর্ষণ করে  সাদ্দাম হোসেন আকঞ্জি, এরই প্রেক্ষিতে গত ৩ জুলাই ১৯ ইং তারিখে সাদ্দাম আকঞ্জির বিরোদ্ধে  ৩ কোটি টাকার চাঁদাবাজি এর মামলা করে বালু ইজারাদার অঞ্জন সরকার লিটন।
মামলাটির চলমান অবস্থা সম্পর্কে জানতে চেয়ে  দুর্গাপুর থানার অফিসার ইন্চার্জ মোঃ মিজানুর রহমানের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি প্রথমবেলাকে জানান, মামালায় অভিযোক্তরা  গ্রেফতার করা হয়েছিলো, এখন তারা সবাই জামিনে আছে, মামলার সঠিক ইনভেস্টিগেশন করছে থানা পুলিশ, অভিযোক্তদের বিরুদ্ধে অনিত অভিযোগ সত্য প্রমাণিত হলে আইন তাদের যথাযোগ্য শাস্তি প্রদান করবে। এদিকে মামলান বাদী অঞ্জন সরকার লিটন জানান মামলার এজহারে অনিত অভিযোগের একটিও অভিযোগো মিথ্যে নয়, জুলাইয়ের(৭/০১/১৯ইং) এক তারিখ রাত ১১টায় যা ঘটেছে তা আশপাশের অনেকেরই জানা! আকঞ্জির দলবল ক্ষমতার দাপটে জামিনে ছাড়া পেয়ে মুক্তস্বাধীন ভাবে ঘুরে বেরাচ্ছে, তারা আমাকে ঠেকাতে আমি এবং আমার লোকদের বিরোদ্ধে ভিত্তিহীন বিষয়বস্তু দিয়ে একটি মিথ্যে মামলা করেছে আকঞ্জি এবং তার লোকজন।  দীর্ঘ্য ৫ মাসেও আমি সঠিক বিচার পেলাম না এবং ভবিষ্যতেও তার সঠিক বিচার পাবো কী না তানিয়ে আমি সংশয়ে আছি! এভাবেই মামলার বাদী অঞ্জন সরকার লিটন বিচার নিয়ে হতাশা ব্যক্ত করেন।

Read Previous

লালমনিরহাটে শ্রেষ্ঠ নির্বাচিত যারা

Read Next

ইতালির জেনোভা শহরে নেমে এসেছে শোকের ছাঁয়া। ৩ বছরের শিশুর মৃত্যু

%d bloggers like this: